Author: বিশেষ প্রতিবেদক

বর্ষাকাল এলেই পাহাড়ধসের দুর্ঘটনায় ঘরবাড়ি হারানো এবং মৃত্যু দুটিই যেন স্বাভাবিক হয়ে দাঁড়িয়েছে। কোনো দুর্ঘটনা যখন স্বাভাবিক হয়ে যায় তখন এর পেছনে দীর্ঘ অনিয়ম দায়ী। পাহাড়ধসে প্রাণহানির সংখ্যা বেশি হলে নিয়মমাফিক তৈরী হয় তদন্ত কমিটি। এসব কমিটি নানা সুপারিশও করে। তবে বাস্তবতা হচ্ছে সেসব সুপারিশের বেশির ভাগই কাগজে থাকে, বাস্তবায়ন হয় না। এমনকি ঝুঁকিপূর্ণ পাহাড়ের নামের তালিকার কাজও অসম্পূর্ণ অবস্থায় পড়ে আছে।  চট্টগ্রাম নগরীর বিভিন্ন পাহাড়ে দিন দিন অবৈধ ঝুঁকিপূর্ণ বসতি বাড়ছে। পাহাড় কেটে গড়ে তোলা এসব বসতিতে মূলত ছিন্নমূল ও নিম্ন আয়ের লোকজনের বসবাস। তবে এই পাহাড় দখলের নেপথ্যে রয়েছেন অনেক রাজনীতিক। অভিযোগ রয়েছে রাজনৈতিক আশ্রয়-প্রশ্রয়ে পাহাড়ের পাদদেশে অবৈধভাবে…

Read More

সাভারের আশুলিয়ায় এক ছাত্র তার শিক্ষককে ক্রিকেট খেলার স্ট্যাম্প দিয়ে এলোপাথাড়ি আঘাত করে৷ আহত শিক্ষক দুদিন পর গতকাল সোমবার চিকিৎসাধীন অবস্থায় এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা মারা যান৷ কিংবা ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে নড়াইল সদর উপজেলার এক কলেজ ১৮ জুন শিক্ষক স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় পুলিশের সামনেই জুতার মালা পরান মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ছাত্র ও স্থানীয় কিছু ব্যক্তি৷ এমন অসংখ্য ঘটনা ঘটছে আমাদের চারপাশে। গত কয়েকবছরে শিক্ষক নির্যাতনের যে ঘৃন্য চিত্র উঠে এসেছে এবং বর্বরতার সকল সীমানা যেভাবে অতিক্রম করা হয়েছে তাতে এটা স্পষ্ট হয়েছে যে এ পেশার মর্যাদা নিতান্তই মুখেমুখে এবং এ নিয়ে নতুন করে ভাবার সময়ও হয়েছে। আমরা…

Read More

স্মরণকালের ভয়াবহ বন্যা ও প্রাকৃতিক দুর্যোগে সিলেট বিভাগে ২২ জনের মৃত্যুর তথ্য জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেট বিভাগীয় কার্যালয়। পরিচালক হিমাংশু লাল রায় সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ‘এ পর্যন্ত বন্যায় সিলেট বিভাগে ২০ জনের মৃত্যুর তথ্য আমরা পেয়েছি। এর মধ্যে সিলেটে ১২ জন, মৌলভীবাজারে তিনজন ও সুনামগঞ্জে পাঁচজন।’ মঙ্গলবার সকালে সিলেটের জৈন্তাপুরে মা-ছেলের মরদেহ ভেসে উঠেছে। তাৎক্ষণিক এ দুই মরদেহের তথ্য তার কাছে নেই। তবে এ তথ্য যোগ হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। সে অনুযায়ী, বন্যায় সিলেট বিভাগে এখন পর্যন্ত ২২ জনের মৃত্যুর তথ্য পাওয়া গেছে। তবে রয়টার্সের বরাত দিয়ে আবহাওয়া বিষয়ক ওয়েবসাইট অ্যাকুওয়েদার জানিয়েছে, গত সপ্তাহের শেষের দিকে মৌসুমি বৃষ্টিপাত শুরু হওয়ার পর…

Read More

ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে ইসলামের নবী মোহাম্মদকে নিয়ে কথিত কটূক্তিমূলক বিষয় সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করার অভিযোগে উজ্জ্বল রায় (২১) নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার (১৫ জুন) তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। আটক উজ্জ্বল রায় পীরগঞ্জ উপজেলার মছনন্দপুর গ্রামের নরেশের ছেলে। পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ১৩ জুন উজ্জ্বল চন্দ্র রায় তার জুই রায় নামে ফেসবুক আইডি থেকে ইসলামের নবী মোহাম্মদকে নিয়ে কথিত কটূক্তিমূলক বিষয় শেয়ার করেন। এতে এলাকাজুড়ে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে চাপোড় বাজারে উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। পরে ওই যুবককে আটক করে পীরগঞ্জ থানা পুলিশ। বুধবার তাকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে কারাগারে পাঠানো হয়। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত…

Read More

ফেনীর দাগনভূঁইয়ার নুরানীয়া হাফেজিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে ওই মাদ্রাসার এক শিশু শিক্ষার্থীকে (১০) পায়ে লোহার শিকল বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। গত শনিবার(১১ জুন) রাতে মাদ্রাসা থেকে পালানোর সময় উপজেলার পূর্বচন্দ্রপুর এলাকা থেকে টহল পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় রোববার সকালে দাগনভূঁইয়া থানা পুলিশ ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ ফখরুল ইসলামকে (৩২) আটক করেছে। তিনি নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার বড় চাঁড়িগাও গ্রামের বাসিন্দা। জানা যায়, পায়ে লোহার শিকল বাঁধা অবস্থায় নির্যাতিত শিশু শিক্ষার্থী রাতের আঁধারে কৌশলে পালাতে গিয়ে টহল পুলিশের হাতে পড়ে। পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করে রাতেই থানায় নিয়ে যায়। ১০ বছর বয়সী ওই শিশু শিক্ষার্থীর নাম জাহিদুল হাসান নাঈম। শনিবার রাতে উপজেলার…

Read More

ইতিহাসবিদ নরম্যান নেইমার্ক তার নতুন বইতে নতুন তর্কের সূত্রপাত করেছেন। তিনি গণহত্যার সংজ্ঞা পাল্টে তার মধ্যে প্রতিটা দেশের অভ্যন্তরীণ সামাজিক ও রাজনৈতিক হত্যাকাণ্ডকে অন্তর্ভুক্ত করার কথা বলেছেন। কারণ গণহত্যা এখন অনেক দেশের সরকারের হাতিয়ার হয়ে উঠেছে। গত কয়েক দশকে রুয়ান্ডা, কম্বোডিয়া, দারফুর ও বসনিয়ায় গণহত্যা তীব্র আকার ধারণ করেছে। জাতীয় পর্যায়ে হত্যাও গণহত্যার পর্যায়ে পড়ে। গণহত্যা শব্দটার আলাদা শক্তি আছে। আন্তর্জাতিক আদালতে, একে ‘ক্রাইম অব ক্রাইমস’ বলা হয়। গণহত্যা শব্দটা প্রথম সংজ্ঞায়িত হয় ১৯৪৮ সালে। জাতিসংঘের এক সম্মেলনে। যে সম্মেলন ছিল হলোকাস্টের উপর। তাই নেইমার্কের মতে গণহত্যার সংজ্ঞায় প্রয়োজনীয় প্রতিটি ক্ষেত্র বিবেচনা করা হয়নি। জাতিসংঘের সাধারণ সভা ৯ ডিসেম্বর ১৯৪৮…

Read More

সম্প্রতি টাঙ্গাইল কারাগারে এক নারী কয়েদির মৃত্যুর অভিযোগে উঠেছে। সুচিকিৎসার অভাবে ওই কয়েদির মৃত্যু হয়েছে দাবি করে নিহতের স্বামী টাঙ্গাইল কারাগারের জেল সুপারসহ অন্যান্য কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে টাঙ্গাইল আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছেন। গত মঙ্গলবার(৩১ মে) সন্ধ্যায় টাঙ্গাইল প্রেস ক্লাবে আসামিদের বিচারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ওই নারী কয়েদির পরিবার। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ওই নারী কয়েদির মেয়ে সোনালী আক্তার বলেন, তার মা নাদীয়া জাহান শেলী ডায়াবেটিক ও কিডনি রোগে আক্রান্ত ছিলেন। এরপরও সখীপুর আমলি আদালতে চলমান মামলায় তিনি ছিলেন ২নং আসামি। গত ৪ঠা এপ্রিল অসুস্থ অবস্থায় তার মা অন্য একটি মামলায় সখীপুর আমলি আদালতে উপস্থিত হয়ে জামিন প্রার্থনা করেন। জামিনের…

Read More

ফেনীতে পার্কে অভিযান চালিয়ে আবারও শিক্ষার্থী হেনস্তার অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে। পার্কে আড্ডা দেয়ার সময় জেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ২৫ শিক্ষার্থীকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতদের মধ্যে ১০ জন ছাত্র ও ১৫ জন ছাত্রী। রবিবার (২৯ মে) দুপুর ১২টার দিকে বিজয়সিং দিঘীর পড় পুলিশের স্পেশাল টিম তাদের আটক করেন। সেখানে তাদের আটকে রাখার পর অভিভাবকদের ডেকে তাদের জিম্মায় দেওয়া হয়। আটক শিশু-কিশোরদের বেশিরভাগই শহরের বিভিন্ন স্কুল-কলেজের অষ্টম শ্রেণি থেকে উচ্চ মাধ্যমিক শ্রেণির শিক্ষার্থী। থানায় নেওয়ার পর তাদের লজ্জায় মুখ ঢাকতে দেখা গেছে। সামাজিক মর্যাদার ভয়ে তাদের চোখেমুখে ছিল ভীতি-আতঙ্ক। আটক শিক্ষার্থীদের ভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ায় এখনও জেলাজুড়ে আলোচনা-সমালোচনার…

Read More

রিপোর্টার্স উইদাউট বর্ডার্স, আরএসএফ সম্প্রতি ২০২১ সালের ‘প্রেস ফ্রিডম প্রিডেটর্স’ বা গণমাধ্যমের স্বাধীনতা শিকারিদের তালিকা প্রকাশ করেছে। এতে বিশ্বের ৩৭ জন রাষ্ট্র বা সরকার প্রধানের নাম রয়েছে যারা গণমাধ্যমের স্বাধীনতায় কঠোর হস্তক্ষেপ করেছেন। তালিকায় দুই নারী নেত্রীর নাম রয়েছে৷ এদের একজন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পরিস্থিতি বিবেচনা করলে কেউ সরকারের সমালোচনা করলেই তাকে ‘স্বাধীনতার বিপক্ষের শক্তি’ হিসেবে তকমা দেয়া হয়। গঠনমূলক সমালোচনা সহ্য করা কঠিন হয়ে পড়েছে ক্ষমতাসীনদের পক্ষে। সেই সমালোচনা যে পক্ষ থেকেই আসুক না কেন, তা দমন করা হচ্ছে কঠিন হাতে। হোক সে বিরোধীপক্ষ বা শিক্ষার্থী, সাংবাদিক বা সাধারণ নাগরিক। নির্বাচন যত ঘনিয়ে আসছে, বাংলাদেশে বিরোধীরা ততোই দমন-নির্যাতনের…

Read More

মাত্র তিন বছরের মধ্যেই দেশে মোবাইল ফোনে অর্থ লেনদেনের ক্ষেত্রে ‘নগদ’ এখন বেশ পরিচিত একটি নাম। বেশ প্রশংসনীয়ভাবেই নগদ বাজারের বড় একটা অংশ তাদের নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে। তবে এখনো নগদের মালিকানা ও ব্যবসা পরিচালনা নিয়ে যে জটিলতা, সেটির সুরাহা হয়নি। এমনকি সাধারণ মানুষের কাছে ডাক অধিদপ্তরের সেবা হিসেবে পরিচিত হলেও, আদতে এর মালিকানায় সম্পৃক্ততা নেই ডাক অধিদপ্তরের। এই ব্র‍্যান্ডই মূলত নগদের এতো অল্প সময়ে মানুষের কাছে বিশ্বস্ততা অর্জনের প্রধাণ কারণ। তবে এই অসৎ অবস্থানের পরেও সগৌরবে কার্যক্রম চালাচ্ছে নগদ। বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা অনুসারে অংশীদারত্বের জায়গা থেকে ডাক বিভাগ এবং ‘নগদ’ (থার্ড ওয়েভ টেকনোলজিস লিমিটেড) কর্তৃপক্ষ এখন মালিকানার পর্যায়ে যাওয়ার প্রক্রিয়ায় রয়েছে।…

Read More