Trial Run

নারায়ণগঞ্জে ছাত্রকে ধর্ষণের অভিযোগে মাদ্রাসা শিক্ষক গ্রেপ্তার

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে ৯ বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে এক মাদ্রাসা শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। রোববার দুপুরে শিশুটির বাবা সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় এ বিষয়ে মামলা করেন।

গ্রেপ্তারকৃত শিক্ষক মিনহাজুর রহমান (২৭)। তার বাড়ি সিলেটের কোনাগ্রামে।

রবিবার (৮ নভেম্বর) দুপুরে ভুক্তভোগী শিশুর বাবা বাদী হয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেছেন।

এর আগে শনিবার থানায় অভিযোগ করলে রাতেই মিজমিজি দক্ষিণ সাহেবপাড়া এলাকার জামিয়াতুল ইমান বোর্ডিং মাদ্রাসা থেকে ওই শিক্ষককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে এলাকাবাসী।

মামলা ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত ২ নভেম্বর দুপুরে মাদ্রাসার আবাসিক শিক্ষক মিনহাজুর রহমান ওই শিশুকে নিজের কক্ষে ধর্ষণ করে। এর আগেও আদর করার কথা বলে কয়েকবার ধর্ষণ করে অভিযুক্ত ওই শিক্ষক। বিষয়টি পরিবারের সদস্যসহ অন্য কাউকে না বলার জন্য মারধর ও বিভিন্ন রকমের ভয়ভীতি এবং প্রাণে মেরে ফেলার হুমকিও দেওয়া হয়।  পরে ৫ নভেম্বর ভুক্তভোগী শিশু তার পরিবারকে বিষয়টি জানালে পরিবারের পক্ষ থেকে মাদ্রাসার প্রধানের কাছে জানানো হয়। পরে শিশুটির পরিবার থানায় অভিযোগ দায়ের করে।

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসি কামরুল ফারুক জানান, আসামিকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। শিশুটির মেডিকেল পরীক্ষা ও ২২ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ড সম্পন্ন হয়েছে।

উল্লেখ্য যে, অক্টোবর ২০২০ মাসে কওমি মাদ্রাসা, মক্তব, মসজিদে শিশু ধর্ষণ, ধর্ষণ চেষ্টা ও শারিরীক নির্যাতনের মোট ৩৩ টি ঘটনা স্টেট ওয়াচ এর পর্যবেক্ষণে আমরা জানতে পেরেছি জাতীয় ও অনলাইন পত্রিকাগুলো থেকে। সেখানে দেখা যায় ১ অক্টোবর ২০২০ থেকে ৩১ অক্টোবর ২০২০ এই পুরো এক মাসে ৩৩ টি শিশু ধর্ষিত হয়েছে যার মধ্যে ২৪ টি ছেলে শিশু আর ৯ টি মেয়ে শিশু। একটি শিশুকে ধর্ষণ শেষে হত্যা করা হয়েছে। ধর্ষণ চেষ্টা ও যৌন নিপীড়ন চালানো হয়েছে ৭ টি শিশুর উপর। অমানুষিক নির্যাতন চালানো হয়েছে ৬৬ টি শিশুর উপর। সবচেয়ে বেশি ঘটনা ঘটেছে চট্টগ্রাম আর সিলেট অঞ্চলে।

সংবাদদাতা প্রেরিত


Available for everyone, funded by readers. Every contribution, however big or small, makes a real difference for our future. Support to State Watch a little amount. Thank you.

ছড়িয়ে দিনঃ
  • 55
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    55
    Shares