Trial Run

আইনপ্রয়োগের চিত্র ও গণমাধ্যম: ২৮ জানুয়ারি ২০২১

স্টেটওয়াচ রিসার্চ নেটওয়ার্ক কাজ করছে বাংলাদেশে আইনপ্রয়োগের সার্বিক চিত্র তুলে ধরার পাশাপাশি মতপ্রকাশের স্বাধীনতা সংক্রান্ত বাস্তবতা নিয়ে। এর অংশ হিসেবে স্টেটওয়াচ নিউজে আমরা প্রতিদিনকার আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতা ও গণমাধ্যম সংক্রান্ত খবরাখবরগুলো সংক্ষেপে তুলে ধরার উদ্যোগ নিয়েছি। প্রতিদিন নিম্নোক্ত মাধ্যমসমূহ থেকে সংবাদগুলো সংগ্রহ ও তা নথিবদ্ধ করছে আমাদের কর্মীরা: প্রথম আলো, কালের কণ্ঠ, যুগান্তর, সমকাল, নয়া দিগন্ত, ইত্তেফাক, দেশ রূপান্তর, ডেইলি স্টার, নিউ এজ, দ্য ফিনান্সিয়াল এক্সপ্রেস, বাংলা ট্রিবিউন, বিডিনিউজ২৪ ডটকম, আমাদের সময়, মানবজমিন। আমরা আশা করি, এই প্রতিবেদন নিয়মিত প্রকাশের মাধ্যমে জনগণের তথ্যপ্রাপ্তির অধিকার আরো শক্তিশালী হবে।

২৮ জানুয়ারি ২০২১ বৃহস্পতিবার, ১৪ মাঘ ১৪২৭, পত্র-পত্রিকায় প্রকাশিত
আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও গণমাধ্যম সংক্রান্ত নির্বাচিত খবরের সার-সংক্ষেপ

ব্যবসায়ী খুন
খুনের আসামি পুলিশ, তদন্তে ধীর গতি

প্রথম আলো
বিভাগ: রাষ্ট্রীয় বাহিনী

ঢাকার শ্যামপুরের ব্যবসায়ী ইউনূস হাওলাদার খুনের আড়াই বছর পার হলেও আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে পারেনি পুলিশ। এই খুনে জড়িত সন্দেহে গ্রেপ্তার পুলিশের এক সহকারী উপপরিদর্শকসহ (এএসআই) তিন আসামি জামিনে বেরিয়ে গেছেন।

দীর্ঘ সময়ে তদন্ত শেষ না হওয়ায় নিহত ব্যবসায়ীর পরিবার হতাশ। স্বামীর খুনের বিচারের কোনো অগ্রগতি না দেখেই গত বছরের মে মাসে মারা যান ব্যবসায়ী ইউনূস হাওলাদারের স্ত্রী মারুফা বেগম। তাঁর ক্যানসার আক্রান্ত এক মেয়েও মারা গেছেন। মামলার বাদী নিহতের বড় ছেলে আতিকুজ্জামান প্রথম আলোকে বলেন, ‘মা চেয়েছিলেন, বিনা দোষে যারা বাবাকে খুন করেছে, তাদের যেন দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হয়। কিন্তু পুলিশ মামলার তদন্তই শেষ করতে পারেনি। আসামিরাও জামিন পেয়ে গেছেন।’

২০১৮ সালের ২৫ জুন দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার হাসনাবাদ এলাকা থেকে অজ্ঞাত এক বৃদ্ধের (ব্যবসায়ী ইউনূস হাওলাদার) লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে জানা যায়, লাশটি ব্যবসায়ী ইউনূস হাওলাদারের। এ ঘটনায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় হত্যা মামলা হয়। মামলায় তদন্ত করতে গিয়ে নিহত ইউনূস হাওলাদারের বাড়ির ভাড়াটে ওহিদ সুমন (২৭) এবং যাত্রাবাড়ী এলাকার ছাবের ওরফে শামীমকে (৪৩) গ্রেপ্তার করে পুলিশ। পরে খুনের দায় স্বীকার করে ঢাকার আদালতে জবানবন্দি দেন আসামি ওহিদ সুমন।

মামলার নথিপত্র বলছে, আসামি ওহিদের জবানবন্দির ভিত্তিতে ব্যবসায়ী ইউনূস হাওলাদার হত্যাকাণ্ডে সম্পৃক্ততার অভিযোগে ২০১৮ সালের ২ সেপ্টেম্বর গ্রেপ্তার হন শ্যামপুর থানার তৎকালীন এএসআই নূরে আলম।

মামলার নতুন তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের অপরাধ ও তদন্ত বিভাগ (সিআইডির) উপপরিদর্শক ইমরান সরকার প্রথম আলোকে বলেন, সম্প্রতি তিনি দায়িত্ব পাওয়ার পর নথিপত্র পর্যালোচনা করেছেন। এই হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেওয়া হবে।

 

পুলিশের নথিতে ‘মৃত’ তদন্ত কর্মকর্তাকে ‘জীবিত’ দাবি করে মামলা

প্রথম আলো
বিভাগ: রাষ্ট্রীয় বাহিনী

বগুড়ার একটি আদালতে চাঁদাবাজি ও মারামারির দুটি মামলার বিচারকাজ চলাকালে সাক্ষ্য দেওয়ার জন্য তদন্তকারী কর্মকর্তা আদালতে হাজির না হওয়ায় পুলিশকে সাক্ষী হাজির করার নির্দেশ দেওয়া হয়। পুলিশের পক্ষ থেকে আদালতে লিখিতভাবে জানানো হয়, ২০১৮ সালের ৮ মার্চ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ধুনট থানার সাবেক উপপরিদর্শক (এসআই) আনোয়ার হোসেন মারা গেছেন। তবে পুলিশের এই দাবি প্রত্যাখ্যান করে বাদীপক্ষ গতকাল বুধবার একই আদালতে মামলা করেছে। মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, সাক্ষী আনোয়ার হোসেন মারা যাননি। তিনি সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশে পরিদর্শক পদে কর্মরত আছেন। আসামিপক্ষের যোগসাজশে পুলিশ মিথ্যা তথ্য দিয়ে আদালতকে বিভ্রান্ত করছে। জীবিত সাক্ষী হাজিরসহ জাল কাগজপত্র জালিয়াতির সঙ্গে জড়িত লোকজনের বিরুদ্ধে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য আদালতে প্রার্থনা করা হয়। বগুড়ার ধুনট উপজেলার কৈগাড়ি গ্রামের নূরন্নবী তালুকদার বাদী হয়ে বগুড়ার স্পেশাল জজ আদালতে এই মামলা করেছেন। তবে আদালতের বিচারক ইমরান হোসেন অভিযোগের কোনো শুনানি এখনো করেননি। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এ এইচ এম গোলাম রব্বানী খান মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

পুলিশের পক্ষ থেকে আদালতে লিখিতভাবে জানানো হয়, ২০১৮ সালের ৮ মার্চ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ধুনট থানার সাবেক উপপরিদর্শক (এসআই) আনোয়ার হোসেন মারা গেছেন। পুলিশের এই দাবি প্রত্যাখ্যান করে বাদীপক্ষ আজ বুধবার একই আদালতে মামলা করেছে। মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, সাক্ষী আনোয়ার হোসেন মারা যাননি।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০১১ সালে ধুনট উপজেলার নাগেশ্বরগাঁতি মৌজায় ৭১ শতক জমি নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি, ধান কেটে নেওয়া ও হামলার অভিযোগ এনে কৈগাতি গ্রামের নূরন্নবী তালুকদার ১২ জনকে আসামি করে ধুনট থানায় মামলা করেন। মামলাটি তদন্ত শেষে তৎকালীন ধুনট থানার উপপরিদর্শক আনোয়ার হোসেন ২০১১ সালের ১৭ জুন আদালতে আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

 

৪৭ হাজার গ্রাম পুলিশের চাকরি জাতীয়করণে হাইকোর্টের রায় স্থগিত

জাগো নিউজ
বিভাগ: রাষ্ট্রীয় বাহিনী

সারাদেশে দায়িত্বরত ৪৭ হাজার গ্রাম পুলিশের চাকরি জাতীয়করণ করতে হাইকোর্টের দেয়া রায় স্থগিত করেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। রায়ের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রপক্ষের করা আপিল আবেদনের বিষয়ে শুনানি নিয়ে বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগে ভার্চুয়াল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে গ্রাম পুলিশের পক্ষে শুনানিতে অংশ নেন সাবেক আইনমন্ত্রী অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরু। তার সঙ্গে ছিলেন ব্যারিস্টার হুমায়ুন কবির পল্লব। এর আগে ২০১৯ সালে রায় প্রকাশের পরপরই রাষ্ট্রপক্ষ গ্রাম পুলিশের বিষয়ে দেয়া রায় স্থগিত চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট শাখায় আবেদন করেন। সেটির শুনানি নিয়ে আজ এই আদেশ দিলেন আদালত।

এর আগে মহল্লাদার এবং দফাদারদেরকে জাতীয় বেতন স্কেলে অন্তর্ভুক্তির নির্দেশনা চেয়ে ২০১৭ সালে রিট করেন ৩৫৫ জন গ্রাম পুলিশ সদস্য। ওই রিটের শুনানি শেষে গ্রাম পুলিশের মধ্যে দফাদার পদধারীদের বেতন-ভাতা ও সুযোগ-সুবিধা ২০০৯ সালে ঘোষিত জাতীয় বেতন স্কেলের (বর্তমানে জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫) ১৯তম গ্রেড এবং মহল্লাদারদের ২০তম গ্রেডে দেয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন হাইকোর্ট।

গুলিসহ পিস্তলের ম্যাগাজিন খোয়া যাওয়ায় এসআই সাময়িক বরখাস্ত

জাগো নিউজ
বিভাগ : রাষ্ট্রীয় বাহিনী

লালমনিরহাট সদর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) খালেকুল বাদশা নামে বরাদ্দ সরকারি পিস্তলের আটটি গুলিসহ একটি ম্যাগাজিন হারিয়ে ফেলার কারণে ওই তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। বুধবার (২৭ জানুয়ারি) এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহ আলম।

এর আগে ২০২০ সালের ৬ অক্টোবর (মঙ্গলবার) লালমনিরহাট পৌরশহরের বালাটারী এলাকার ভাড়াবাসা থেকে টিএসআই আইয়ুব আলীর সরকারি পিস্তল খোয়া যায়। ওই পিস্তলটি এখনও উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। এরই মধ্যে আবারও পুলিশের পিস্তলের গুলি ও ম্যাগাজিন হারানোর ঘটনা ঘটল।

ওসি বলেন, ‘এ ঘটনাটি অবহিত হওয়ার পর পরই এসআই খালেকুল বাদশাকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। তিনি সঠিক উত্তর দিতে না পারায় তাকে পুলিশ লাইনসে ক্লোজড করা হয়েছে। গুলিভর্তি ম্যাগাজিনটি উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।’

লালমনিরহাট সদর থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৪ জানুয়ারি রবিবার রাতে লালমনিরহাট সদর উপজেলার পৌরশহরের কলেজবাজার এলাকায় এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করতে যান এসআই খালেকুল বাদশা। ওই ব্যক্তিকে উদ্ধার করতে গিয়ে স্থানীয় লোকজনের সঙ্গে তার ধাক্কাধাক্কির ঘটনা ঘটে। এ সময় তার সঙ্গে থাকা পিস্তলের ম্যাগাজিনটি ৮ রাউন্ড গুলিসহ হারিয়ে যায়। বিষয়টি তিনি লালমনিরহাট সদর থানা পুলিশকে অবগত না করে গোপন করেন। কিন্তু বিষয়টি জানাজানি হলে তাকে ২৫ জানুয়ারি সোমবার প্রথমে লালমনিরহাট জেলা পুলিশ লাইন্সে প্রত্যাহার করা হয় এবং পরে ২৬ জানুয়ারি মঙ্গলবার তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

 

বরগুনায় সাংবাদিকের উপর ‘মুখোশধারীদের’ হামলা

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম
বিভাগ: গণমাধ্যম

বরগুনায় ‘পাথরঘাটা পৌরসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে মুখোশধারীদের’ হামলায় স্থানীয় এক সাংবাদিক আহত হয়েছেন।

বুধবার রাতে ৯টার দিকে তার বাসার পাশেই এ হামলা শিকার হন বলে জানিয়েছেন ওই সাংবাদিক। আহত অমল তালুকদার (৩৫) ‘ভোরের কাগজ’ পত্রিকার পাথরঘাটা উপজেলা প্রতিনিধি। এ হামলার সত্যতা স্বীকার করে পাথরঘাটা থানার ওসি শাহাবুদ্দিন বলেন, অভিযোগ পেলে আমরা তদন্ত করে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব।

আহত অমল তালুকদার জানান, বাসার সংলগ্ন তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে কয়েকজন সহকর্মীকে বসিয়ে রেখে তিনি বাসায় আসেন। বাসা থেকে বের হয়ে সেখানে ফেরার সময় চার থকে পাঁচজন মুখোশধারী তাকে হামলা করে। তার চিৎকারে অফিসে অপেক্ষকমান সহকর্মীরা এগিয়ে এলে দৃর্বৃত্তরা দৌড়ে পালিয়ে যায়।

তাকে তাৎক্ষণিকভাবে পাথরঘাটা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। নিরাপত্তার জন্য চিকিৎসা শেষে সাংবাদিক অমলকে বাসায় নিয়ে আসা হয়। পাথরঘাটা প্রেসক্লাবের সভাপতি ফারুক চৌধুরী বলেন, নির্বাচনে পেশাগত দায়িত্ব পালন সাংবাদিকদের জন্য ঝুঁকি পূর্ণ হয়ে পড়েছে।

 

সাংবাদিক শ্রেণিতে এবারও সেরা করদাতা মাহ্‌ফুজ আনাম ও মতিউর রহমান

প্রথম আলো
বিভাগ: গণমাধ্যম

সাংবাদিক শ্রেণিতে এবারও সেরা করদাতা হয়েছেন ইংরেজি দৈনিক দ্য ডেইলি স্টারের সম্পাদক মাহ্‌ফুজ আনাম। এর পরেই আছেন চট্টগ্রাম থেকে প্রকাশিত দৈনিক আজাদীর সম্পাদক মোহাম্মদ আবদুল মালেক ও প্রথম আলোর সম্পাদক ও প্রকাশক মতিউর রহমান। সাংবাদিক শ্রেণিতে সেরা পাঁচ সাংবাদিকের অন্যরা হচ্ছেন চ্যানেল আইয়ের পরিচালক (বার্তা) শাইখ সিরাজ ও জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক মনজুরুল আহসান বুলবুল। ২০১৯-২০ অর্থবছরের জন্য তাঁরা সেরা করদাতার এ স্বীকৃতি পেয়েছেন। প্রসঙ্গত, দৈনিক আজাদীর সম্পাদক মোহাম্মদ আবদুল মালেকের অন্য ব্যবসাও রয়েছে

এ ছাড়া কোম্পানি পর্যায়ে ‘প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া’ শ্রেণিতে সেরা করদাতা চার প্রতিষ্ঠানের মধ্যে তিনটিই ট্রান্সকম গ্রুপের সঙ্গে সম্পর্কিত। এগুলো হচ্ছে মিডিয়া স্টার লিমিটেড, ট্রান্সক্রাফট লিমিটেড ও মিডিয়া ওয়ার্ল্ড লিমিটেড। ট্রান্সক্রাফট লিমিটেড থেকে বাংলা ও ইংরেজি ভাষায় প্রকাশিত দেশের শীর্ষস্থানীয় দৈনিক প্রথম আলো ও দ্য ডেইলি স্টার পত্রিকা ছাপা হয়। প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া শ্রেণিতে সেরা চার করদাতা প্রতিষ্ঠানের অন্যটি হচ্ছে ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেড। ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়ার অধীনে দৈনিক কালের কণ্ঠ, বাংলাদেশ প্রতিদিনসহ একাধিক দৈনিক পত্রিকা, অনলাইন সংবাদমাধ্যম, টেলিভিশন ও রেডিও রয়েছে।

জাতীয় ট্যাক্স কার্ড নীতিমালা, ২০১০ (সংশোধিত) অনুযায়ী, সম্প্রতি সাংবাদিকসহ সেরা করদাতা মোট ১৪১ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের নামের তালিকা প্রকাশ করেছে এনবিআর। এরই মধ্যে এ–সংক্রান্ত সরকারি গেজেটও প্রকাশ করা হয়েছে। সেখান থেকেই এসব তথ্য পাওয়া গেছে। আনুষ্ঠানিকভাবে সেরা করদাতাদের সম্মাননা ও ট্যাক্স কার্ড দেবে এনবিআর। তবে এখনো সেই তারিখ নির্ধারণ হয়নি।

 

নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১৮ ফেব্রুয়ারি

বিভাগ: ডিজিট্যাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট
সংবাদ বাংলা

ঢাকা: ধর্ষণের সহযোগিতা এবং ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের সাবেক সহসভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুরসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন দাখিলের তারিখ পিছিয়ে আগামী ২৮ জানুয়ারি দিন ধার্য করেছেন আদালত। বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) মামলাটি তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ধার্য ছিল। কিন্তু এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কোতয়ালী জোনাল টিমের পুলিশ পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মো. ওয়াহিদুজ্জামান প্রতিবেদন দাখিল করতে পারেননি।

এ জন্য ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট নিভানা খায়ের জেসী প্রতিবেদন দাখিলের এ তারিখ ঠিক করেন।

২০২০ সালের ২১ সেপ্টেম্বর কোতয়ালী থানায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের সাবেক সহসভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুরসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের ওই শিক্ষার্থী কোতয়ালী থানায় মামলাটি দায়ের করেন। মামলার অন্য আসামিরা হলেন, বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক নাজমুল হাসান সোহাগ (২৮), একই সংগঠনের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন (২৮), বাংলাদেশ ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. সাইফুল ইসলাম (২৮), বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের সভাপতি নাজমুল হুদা (২৫) ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আব্দুল্লাহিল কাফি (২৩)

বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুনকে প্রধান আসামি করে এ ধর্ষণ মামলাটি দায়ের করেন ভিকটিম। এ মামলায় ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুরসহ আরও পাঁচ জনকে সহযোগিতার অভিযোগে আসামি করা হয়।

 

Digital Security Act case: April 22 set for charge framing hearing against Rita Dewan

The Daily Star
Category : Digital Security Act

A Dhaka tribunal today set April 22 for charge framing hearing against Baul singer Rita Dewan and two others in a case filed for “hurting religious sentiment” under the Digital Security Act.

Rita and two other accused — Shahjahan Kabir and Iqbal Hossain — now on bail, were present in the court today. Dhaka Cyber Tribunal Judge Mohammad Ash Sams Joglul Hossain set the date after scrutinising case dockets and other relevant documents.

The judge also extended Rita Dewan’s bail till April 22. The tribunal on December 2 last year issued arrest warrants against Rita, Shahjahan and Iqbal, accepting the probe report of the case. The report was filed by the Police Bureau of Investigation.

ছড়িয়ে দিনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আপনার মতামত জানানঃ