Trial Run

গভীর রাতে খোকাপুত্র ইশরাকের বাসায় হামলা

প্রয়াত বিএনপি নেতা ও অবিভক্ত ঢাকা সিটি করপোরেশনের মেয়র, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাদেক হোসেন খোকার গোপীবাগের বাসায় বিজয় দিবসের প্রথম প্রহরে হামলার অভিযোগ উঠেছে। বাড়িটিতে বসবাস করছেন খোকার পুত্র বিএনপির বৈদেশিক সম্পর্কবিষয়ক কমিটির সদস্য প্রকৌশলী ইশরাক হোসেন। মঙ্গলবার রাত তিনটার দিকে হেলমেট পরা কিছু যুবক বাসার গলিতে ঢুকে অতর্কিত এ বাড়িতে হামলা চালায়। 

হামলার সময় বাসায় কেউ না থাকায় হতাহতের কোনো ঘটনা ঘটেনি। তবে বাসার সামনের দিকে জানালার কাঁচ ভেঙে গেছে। প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে ইশরাক হোসেন জানান, এক থেকে দেড়শ’ মোটরসাইকেল নিয়ে হেলমেট পরা যুবকরা জয় বাংলা স্লোগান দিয়ে বাসায় হামলা করে। এ সময় ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। বাসার সামনে ঝোলানো পোস্টার ও ফেস্টুন ছিঁড়ে ফেলে। তখন পরিবারের সঙ্গে তিনি গুলশানের বাসায় ছিলেন বলে জানান ইশরাক।

এ ঘটনায় দুপুরে মতিঝিল থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করার কথা জানিয়ে তিনি বলেন, অভিযোগ করেছি। পুলিশ সাধারণ ডায়েরিভুক্ত করেছে। এ ঘটনায় প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করার বিষয়ে তারা আমাকে আশ্বস্ত করেছেন। বিজয় দিবসের প্রথম প্রহরে একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার বাসায় এমন হামলা সত্যি ন্যক্কারজনক।

এ সময় তিনি এ ঘটনাকে সরকার দলীয় গুণ্ডাদের সন্ত্রাসী তৎপরতা হিসেবে অভিহিত করে বলেন, বিএনপি সরকারের পাতা ফাঁদে কোনোভাবেই পা দেবে না। এ ঘটনায় পুলিশকে সুষ্ঠু তদন্তের আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, প্রজাতন্ত্রের কর্মচারিদের দায়িত্ব নাগরিকের স্বার্থ দেখা। কারণ নাগরিকের করের টাকাতেই তার বেতন হয়। সুতরাং পুলিশকে সত্যিকারের হামলাকারীদের খুঁজে বের করে শাস্তির মুখোমুখি করতে হবে।

এদিকে এক বিবৃতিতে এ ঘটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, ইশরাক হোসেন একজন তরুণ বিএনপি নেতা ও সমাজসেবক। তার সমাজসেবামূলক কর্মকাণ্ড ও জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হয়েই ক্ষমতাসীন দলের সন্ত্রাসীরা তার বাসভবনে হামলা চালিয়েছে।

এসডাব্লিউ/ডিজে/আরা/১১৫০

ছড়িয়ে দিনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আপনার মতামত জানানঃ